• রংপুর
  • শনিবার, ১৭ এপ্রিল, ২০২১

বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে কিশোরীকে ধর্ষণ : আটক ৫

বিশেষ প্রতিনিধি
চট্টগ্রাম

প্রকাশ : মঙ্গলবার, ৬ অক্টোবর, ২০২০

চট্টগ্রাম থেকে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে কিশোরীকে (১৬) নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার মুছাপুর ইউনিয়নে এনে ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। রোববার রাতে উপজেলার একই ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডে নুরুজ্জামানের বাড়ীর সাইফুল ইসলামের বশত ঘরে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় এলাকাবাসী ধর্ষিতা, ধর্ষক ও সহযোগিদের আটক করে পুলিশ কে সংবাদ দিলে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ধর্ষিতা সহ ৫ জনকে থানায় নিয়ে আসে। 

ধর্ষিতা কিশোরীকে ধর্ষক ইমন ও তার অপরাপর সহযোগিদের সহযোগিতায় সাইফুলের বাড়ীতে রেখে একাধিকবার ধর্ষণ করে বলে ধর্ষিতা কিশোরী অভিযোগে জানায়। ধর্ষিতা কিশোরী (১৬) চট্টগ্রামের একটি পোশাক তৈরীর কারখানায় চাকুরীরত। তার গ্রামের বাড়ী কুমিল্লা জেলার দেবীদ্বার উপজেলার রামচন্দ্রপুর গ্রামে।

ধর্ষিতা কিশোরী অভিযোগে জানায়, ধর্ষক ইমন বিয়ের প্রলোভনে তার সাথে সম্পর্ক গড়ে তোলে। এ সুবাদে রোববার রাতে চট্টগ্রাম থেকে বসুরহাট এক্সপ্রেস বাস যোগে কোম্পানীগঞ্জে বসুরহাট বাস স্টান্ডে নিয়ে আসে তাকে। সেখান থেকে ধর্ষক ইমনের সহযোগি সিএনজি চালক জামাল উদ্দিন পিয়াস সিএনজি নিয়ে এসে তাকে ও ইমনকে মুছাপুরে সাইফুলের বাড়ীতে নিয়ে যায়। এসময় সাইফুলের বাড়ীতে একটি টিনের ঘরে অপরাপর সহযোগিদের সহযোগিতায় বসুরহাট এক্সপ্রেসের হেলপার ইমন একাধিকবার তাকে ধর্ষণ করে। 


এঘটনা এলাকার লোকজন টের পেয়ে তাদেরকে আটক করে পুলিশে সংবাদ দেয়ার পর গভীর রাতে পুলিশ তাদেরকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়। চট্টগ্রাম থেকে কিশোরী কোম্পানীগঞ্জে এনে ধর্ষণের বিষয়ে জানতে চাইলে কোম্পানীগঞ্জ থানার ওসি আরিফুর রহমান জানান, এই নারী পতিতা। কিশোরী ভাসমান পতিতা প্রতিয়মান হওয়ায় ওই কিশোরীসহ তাদের ৫ জনকে ২৯০ ধারায় আদালতে পাঠানো হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


ই-মেইল : news.ajkersamaj@gmail.com
এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2020
Desing & Developed by Moksadul Momin